জানাজা ছাড়াই দাফন এমন মৃত্যু কারও ভাগ্যে যেন না হয়!

0
61

বিশ্বব্যাপী প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসে মৃতের সংখ্যা বাড়ছেই। আক্রান্ত হচ্ছে হাজার হাজার মানুষ। বাংলাদেশেও হানা দিয়েছে মরণঘাতী এই ভাইরাস। দেশে করোনায় আক্রান্ত হয়ে এখন পর্যন্ত মারা গেছেন একজন। আর আক্রান্ত হয়েছেন ১৭ জন।

তবে মারা যাওয়া ব্যক্তিদের কপালে জুটছে না জানাজা কিংবা আত্মীয়-স্বজনের দেখা। কী মর্মান্তিক এই মৃত্যু। আপনজনের মৃত্যু হলেও ভয়ে দেখতে যেতে পারছেন না কেউ। করোনাভাইরাসে মৃত এমন এক ব্যক্তির জানাজার বর্ণনা দিয়েছেন মহিবুল্লাহ মুহিব নামে একজন ব্যক্তি।

আজ বৃহস্পতিবার নিজের ফেসবুক অ্যাকাউন্টে বাংলাদেশে করোনাভাইরাসে মৃত প্রথম ব্যক্তির জানাজা নিয়ে মর্মান্তিক বর্ণনা দিয়েছেন তিনি। স্টুডেন্ট জার্নাল-এর পাঠকদের উদ্দেশে ফেসবুকের ওই স্ট্যাটাসটি তুলে ধরা হলো-

‘কী মর্মান্তিক! এমন মৃত্যু কারও ভাগ্যে যেন না হয়। যিনি বাংলাদেশে করোনায় মারা গেলেন, সেই ব্যক্তিও কি কখনো ভেবেছিলেন, তার লাশের পাশে আসবে না কোনো স্বজন? তার জানাজায় থাকবে না কোন মুসল্লি? শেষবারের মতো এক নজর দেখতে ভীড় করবে না কেউ?

এমন মৃত্যু কি কখনো তার কল্পনায় ছিল? হ্যাঁ, এটি এখন বাস্তবতা। ফেসবুকে বিদেশে করোনায় মৃতের লাশ সৎকারের দৃশ্য দেখে শিউরে উঠেছে অনেকেই। এটি ফেসবুক নয়, বাস্তব এবং বাংলাদেশের দৃশ্য। যে দৃশ্য দেখে কেউ স্থির থাকতে পারে না।

প্রাণঘাতি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে দেশে প্রথম মৃত ব্যক্তির দাফন হয়েছে আজিমপুর কবরস্থানে। এই ব্যক্তির দাফন-কাফনে তার স্বজনদের কেউ উপস্থিত ছিলেন না। এমনকি হয়নি জানাজাও। আঞ্জুমান মুফিদুল ইসলাম লাশের দাফনের ব্যবস্থা করেছে। ঢাকা জেলা প্রশাসনের একজন ম্যাজিস্ট্রেট দূর থেকে শুধু তদারকি করেছেন।

কে জানে, এমন দুর্ভাগ্য আপনার-আমার হবে না? উল্লেখ্য, বিদেশ থেকে আগত এক আত্মীয়ের মাধ্যমে সংক্রামিত হয়েছিলেন এই বৃদ্ধ। একমাত্র সচেতনতাই পারে আমাদের এই দুর্যোগ থেকে বাঁচাতে…।’ চীনের উহান থেকে ছড়িয়ে পড়া প্রাণঘাতী এই করোনাভাইরাসে এখন পর্যন্ত ১৭৬টি দেশের ২ লাখের বেশি মানুষ সংক্রমিত হয়েছে, মৃত্যু হয়েছে কমপক্ষে ৯ হাজার মানুষের।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here